একসময় আত্নহত্যা করতে চেয়েছিলেন কলকাতার এই তারকা

73

একসময়ে খেলায় ব্যর্থ হওয়ায় নিজেকে শেষ করে দিতে চেয়েছিলেন। আর এখন তার স্পিন ধ্বংস হচ্ছে প্রতিপক্ষের ব্যাটসম্যানরা। বিপক্ষের বাঘা বাঘা ব্যাটসম্যানদের রাতের ঘুম কেড়ে নিচ্ছেন কলকাতা নাইটরাইডার্সে তরুণ বোলার কুলদীপ যাদব।

মঙ্গলবার (১৬ মে) ইডেন গার্ডেন্সে রাজস্থান রয়্যালসের ব্যাটিং মেরুদণ্ড একাই ভেঙে দেন কুলদীপ। ২০ রান দিয়ে চার-চারটি উইকেট তুলে নেন তিনি। আর তার বোলিং নৈপুণ্যে কলকাতা নাইটরাইডার্সও ম্যাচটা জিতে নেয় সহজে।

কুলদীপের উপরে এখন হাজার ওয়াটের আলো। তাকে দলে রাখা নিয়ে অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও তৎকালীন কোচ অনিল কুম্বলের মধ্যে মন কষাকষি শুরু হয়েছিল। পরে তা অন্য আকার ধারণ করে। আর সেই কুলদীপ একদিন আত্মহত্যা করার ভাবনাচিন্তা করেছিলেন।

গত বছর লখনাউয়ে একটি অনুষ্ঠানে এসে নাইট-স্পিনার ফাঁস করেছিলেন সেই তথ্য। তখন কুলদীপের বয়স ১৩। সেই সময়ে উত্তরপ্রদেশের অনূর্ধ্ব ১৫ দলের জন্য ট্রায়াল দিয়েছিলেন কুলদীপ। দলে সুযোগ পাওয়ার জন্য ঘাম ঝরাতে হয়েছিল তাকে। তবুও দলে জায়গা হয়নি কুলদীপের। অনূর্ধ্ব ১৫ রাজ্য দলে জায়গা না হওয়ায় মানসিক দিক থেকে ভেঙে পড়েছিলেন কুলদীপ। তখনই আত্মহত্যার চিন্তা ভিড় করেছিল কুলদীপের মনে।

এই দুঃসময়ে সময়ে এগিয়ে আসেন কুলদীপের বাবা। কুলদীপকে বুঝিয়ে সুজিয়ে আবার ক্রিকেটে পাঠান তিনি। বাবার পরামর্শ পেয়ে বদলে যান চায়নাম্যান বোলার। এখন কুলদীপ জাদু ছড়াচ্ছেন মাঠে। তার বল বুঝতেই পারছেন না প্রতিপক্ষের ব্যাটসম্যানরা। শুধু আইপিএলেই নন, দেশের জার্সিতেও ম্যাচ উইনার হয়ে উঠছেন কুলদীপ।