এসএ গেমসে সোনা জয়ের লক্ষ্যে ঢাকা ছাড়লো জামাল ভুঁইয়ারা

ডিসেম্বরের ১ তারিখে নেপালে পর্দা উঠবে দক্ষিণ এশিয়ার শ্রেষ্ঠত্বের আসর এসএ গেমসের। এবার ফুটবলে ভালো কিছু করার প্রত্যয় নিয়ে আজ দুপুরে নেপালের কাঠমুন্ডুর উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়লো বাংলাদেশ ফুটবল দল ।

নেপালের মাঠের কন্ডিশনের সাথে খাপ খাইয়ে নিতে দিন চারেক আগেই ঢাকা ছাড়লো বাংলাদেশ দল। এবারের আসরে ভারত দল না পাঠানোতে শিরোপা জেতার বড় একটা সুযোগ আছে বাংলাদেশের।

নেপালে এসএ গেমসের প্রস্তুতির জন্য ক্যাম্প শুরু হলেও বসুন্ধরা কিংস প্লেয়ার না ছাড়ায় সেটি বাতিল হয়। ফলে নিজ দেশে ফিরে গেছেন কোচ জেমি ডে। তিনি আগামী ৩০ নভেম্বর কাঠমুন্ডুতে সরাসরি যোগ দেবেন দলের সাথে।

আগামী মাসের ১ তারিখ থেকে নেপালে শুরু হবে ১৩তম এসএ গেমসের আসর। প্রথম দিনেই মাঠে নামবে বাংলাদেশ ফুটবল দল। স্বাগতিক নেপালের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে যাত্রা শুরু হবে জেমি ডের দলের। ৩ ডিসেম্বর গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ভুটান।

দুই গ্রুপ থেকে চ্যাম্পিয়ন ও রানার আপ উঠবে সেমিফাইনালে। ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন খেলবে ‘বি’- গ্রুপের রানার আপের সঙ্গে, আর ‘বি’ গ্রুপের রানার আপ ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়নের সঙ্গে।

সেমিফাইনালের জয়ী দুই দল সোনার জন্য লড়বে ফাইনালে। ১০ ডিসেম্বর সোনার নিষ্পত্তি হওয়ার আগের দিন হবে তৃতীয় স্থান নির্ধারনী ম্যাচ।

এসএ গেমসের বাংলাদেশ ফুটবল দল

গোলরক্ষক

আনিসুর রহমান জিকো, মোহাম্মদ পাপ্পু হোসেন, মাহফুজুর রহমান প্রীতম;

ডিফেন্ডার

বিশ্বনাথ ঘোষ, রহমত মিয়াঁ, ইয়াসিন খান, টুটুল হোসেন বাদশা, রিয়াদুল হাসান, ইয়াসিন আরাফাত, শুশান্ত ত্রিপুরা;

মিডফিল্ডার

জামাল ভুঁইয়া, বিপলু আহমেদ, রবিউল হাসান, মাহবুবুর রহমান, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, মোহাম্মদ আল আমিন;

ফরোয়ার্ড

সাদ উদ্দিন, নাবিব নেওয়াজ জীবন, রাকিব হোসেন, আরিফুর রহমান।