জমি বন্ধক রেখে একাডেমিতে ভর্তি হয়েছি: তৌহিদ হৃদয়

শ্রীলঙ্কা অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিপক্ষে টানা তিনটি শতক হাঁকিয়েছন বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান তৌহিদ হৃদয়। যুব ওয়ানডেতে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে টানা তিন সেঞ্চুরিতে একাধিক বিশ্বরেকর্ডের বুকেও নাম লিখিয়েছেন তরুণ ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান।

যুগান্তর পত্রিকায় এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান কিভাবে একাডেমিতে ভর্তি হয়েছেন।
তৌহিদ হৃদয় বলেন; “আমার বাবা সরকারি চাকরি করেন ঠিক আছে, কিন্তু ওনার অত টাকা-পয়সা নেই। মা আমাকে ভালো একটা একাডেমিতে ভর্তি করার জন্য আমাদের৩৩ শতাংশ জমি বন্ধক রাখেন। ২০১১-১২ সালের দিকে বনশ্রীর একটি একাডেমিতে ৩০ হাজার খরচ করে ভর্তি করেদেন।”

বর্তমানে সেই জমি কি ফেরত পেয়েছে কিনা, জানতে চাইলে তিনি আরও জানান; “হ্যাঁ,গত বছর আমি জমিটা ফেরত নিয়েছি। ধানের ওপর বন্ধক রাখা হয়েছিল। যে কারণে অতিরিক্ত কোনো টাকা দিতে হয়নি। মূল টাকা দিয়েই ফেরত পেয়েছি।”

তৌহিদের জন্ম বগুড়া শহরে। বাবা এনামুল হক জেলা খাদ্য অধিদফতরে সহকারী হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। তার দুই বোন ও এক ভাই আছে। বড় বোন উম্মে রুমান ইডেন কলেজে মাস্টার্সে অধ্যয়নরত আছে। ছোট বোন ক্লাস সিক্সে পড়ে। আর, মা তাহমিনা আক্তার গৃহিণী।

উল্লেখ্য যে, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৫ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের ১ টি বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হলেও বাকি ৪ টিতে তৌহিদের পারফরম্যান্স যথাক্রমে ৮৮*,১২৩*,১১৫,১১১ রান।