সাফ ফুটবল ২০২০ অনুষ্ঠিত হবে বাংলাদেশে

২০২০ সালের সাফ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের ভ্যেনু নির্বাচিত হয়েছে বাংলাদেশ। গতকাল সাফের আনুষ্ঠানিক সভায় বাংলাদেশের নাম ঘোষণা করা হয়। ২০১৮ সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ভ্যেনুও ছিল বাংলাদেশ। ২০২০ এ পাকিস্তানের আয়োজনের কথা থাকলেও নিরাপত্তার কথা ভেবে বাংলাদেশকে নির্বাচন করা হয়।

২০১৮ সালে অনুষ্ঠিত সাফ ফুটবলের শিরোপা জিতেছিল মালদ্বীপ। ২০১৮ সাফ অনুষ্ঠিত হয় ঢাকায়। ফাইনালে ভারতকে হারিয়ে দ্বিতীয় শিরোপা জয় করে মালদ্বীপ। শীর্ষ গোলদাতা হন ভারতের মানবীর সিং। টুর্নামেন্টের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন মালদ্বীপের মোহাম্মদ ফয়সাল। সাফ ফুটবলের সর্বোচ্চ শিরোপা জয়লাভকারী দল ভারত। তারা সর্বোচ্চ ৭ বার সাফ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে। বাংলাদেশ ২০০৩ সালে একমাত্র শিরোপা জয়লাভ করেছিল।

২০১৮ সালের সাফ চ্যাম্পিয়ন হয় মালদ্বীপ

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের যাত্রা শুরু হয় ১৯৯৩ সালে লাহোরে। সেসময় এর নাম ছিল সার্ক গোল্ড কাপ। দক্ষিণ এশীয় ৭ দল নিয়ে এই টুর্নামেন্টের আয়োজন করা হয়।২০০৫ সালে আফগানিস্তান সার্কের অন্তর্ভুক্ত হওয়ায় সাফে অংশ নেয়া শুরু করে। ২০১৫ সালে সেন্ট্রাল এশিয়ান ফুটবল ফেডারেশন (CAFF) এর প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হয়ে তারা সাফ পরিত্যাগ করে।

প্রতি দুই বছর পরপর সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ অনুষ্ঠিত হয়। ২০০১ এর অক্টোবর-নভেম্বর থেকে ২০০২ এর জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত বাংলাদেশ ফুটবলের ফিফা সদস্যপদ স্থগিত করলে প্রথমবারের মতো সাফের আসরও স্থগিত করা হয়। পরবর্তীতে ২০০৩ সালে পুনরায় অনুষ্ঠিত হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here