দক্ষিণ এশিয়ার ক্রিকেট নিয়ে পিএইচডি করতে চান মুশফিক

photo: Twitter

বাংলাদেশ জাতীয় দলের অন্যতম নির্ভরশীল এক ক্রিকেটার উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। যাকে টাইগার ভক্তরা নাম দিয়েছেন মি. ডিপেন্ডেবল। এই মি.ডিপেন্ডেবল শুধু ক্রিকেটেই কারো অনুপ্রেরনা তা নয় পড়াশোনাতেও অন্যদের কাছে একজন বড় অনুপ্রেরণার পাত্রই বটে। খেলা, সংসার জীবনের সাথে এখনো পড়াশোনাটাকেও চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। অনার্স, মাস্টার্স শেষ করে কাল বসবেন এমফিল পরীক্ষায়।

মুশফিকুর রহিম জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে চান বছর আগে ইতিহাস বিভাগ থেকে প্রথম শ্রেনীতে অনার্স ও মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। খেলার পাশাপাশি পড়ালেখাতে দারুন কৃতিত্বের জন্য তাকে বিশেষ সম্মাননাও দেয় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই এসোসিয়েশন। এবার একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এমফিল পরিক্ষাতে বসতে যাচ্ছেন মুশফিকুর রহিম।

সম্প্রতি ক্রিকেটের জনপ্রিয় পোর্টাল ক্রিকবাজকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এসব তুলে ধরেন মুশফিক। তার ভাষ্যে, ‘ পড়াশোনা ও খেলাধুলা এটা অবশ্যই অনেক কঠিন কাজ। চার বছর আগে অনার্স শেষ করেছি, এখন পড়তে বসলে আমার ছেলে মায়ান আমার সঙ্গে খেলতে চায়, এখন আমি বাবাও, তার সাথেও সময় কাটাতে হয়। সবকিছু মানিয়েই চলতে হয়, আর এটা চ্যালেঞ্জও বটে।”

শুধু এমফিল না, পিএইচডি ও সম্পন্ন করতে চান তিনি। এ ব্যাপারে তিনি বলেন,” ১৮ জুলাই আমার পরিক্ষা, আরেকটি ৪ আগস্ট। আমার লক্ষ্য এমফিল শেষ করে দ্রুতই পিএইচডি টা শেষ করা। আর যেহেতু আমি ক্রিকেটার তাই এশিয়ার ক্রিকেট নিয়ে কিছু করতে চাই।”

উল্লেখ্য, আগামীকাল পরিক্ষা শেষ করে আগামী ২০ জুলাই শ্রীলঙ্কার উদ্দেশ্যে ক্রিকেটারদের সাথে দেশ ছাড়ার কথা রয়েছে মুশফিকের। আর এ সিরিজে সাকিব না থাকায় মি ডিপেন্ডেবল’র দায়িত্বটা আর ভক্তদের প্রত্যাশাও থাকবে বেশি।