ফাইনালে সেই ‘বিতর্কিত থ্রো’ নিয়ে মুখ খুললো আইসিসি

গত ১৪ জুলাই (রোববার) পর্দা নেমেছে জমজমাট ওয়ানডে বিশ্বকাপের দ্বাদশ আসর। আর সেখানে রুপকথাকেও হার মানিয়ে ফাইনালে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপের শিরোপার স্বাদ পেয়েছে ক্রিকেটের জনক খ্যাত স্বাগতিক ইংল্যান্ড।

চমক দিয়ে শ্রীলঙ্কা সফরের দল ঘোষণা; ছুটিতে সাকিব-লিটন

এদিন শ্বাসরুদ্ধকর ফাইনাল ম্যাচে প্রথমে টাই হয়। ফলে খেলা গড়ায় সুপার ওভারে, সেখানেও দুই দলই করে সমান ১৫ রান। শেষ পর্যন্ত বাউন্ডারি বেশি হাঁকানোয় বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হয় ইংল্যান্ড। তবে এই ম্যাচ নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে একটি বিতর্কের। আর এই ঘটনাটি ঘটে ম্যাচের শেষ ওভারের।

বোল্টের করা সে ওভারের তৃতীয় বলে দুই রানের জন্য দৌড় দেন স্টোকস ও আদিল রশিদ। বল হাতে পেয়েই থ্রো করেন গাপটিল। আর এই থ্রো করা বল স্টোকসের গায়ে লেগে বল বাউন্ডারির বাইরে গেলে দুই রানের সাথে অতিরিক্ত চার রান বোনাস পায় ইংল্যান্ড। আর তাতেই ৩ বলে ৯ রান থেকে ইংলিশদের সামনে সমীকরণ দাঁড়ায় ২ বলে ৩ রান।

মুসলিম বিশ্বে প্রশংসায় ভাসছেন ইংল্যান্ডের দুই মুসলিম ক্রিকেটার!

তবে ম্যাচের পর ওই ঘটনা প্রসঙ্গে একটি টুইট করেন পাঁচবারের বর্ষসেরা আম্পায়ার সায়মন টফেল।

টফেল লেখেন, ‘স্টোকসের দ্বিতীয় রান নেওয়ার আগেই গাপটিলের থ্রো করে ফেলায় ওই বলে ইংল্যান্ডের পাওয়ার কথা ছিল পাঁচ রান, স্টোকসেরও তাহলে থাকতে হতো ননস্ট্রাইকে।’

আর এরপরই শুরু হয় বিতর্ক। বিশ্বকাপের মতো আসরে এমন ভুল মেনে নিতে পারেনি ক্রিকেট বিশেষজ্ঞ থেকে সাবেক ক্রিকেটাররা। অবশেষে বিতর্কিত সেই থ্রো নিয়ে নিজেদের অবস্থান পরিষ্কার করেছে আইসিসি।

এই প্রসঙ্গে আইসিসির এক মুখপাত্র বলেন, ‘আম্পায়াররা মাঠে নিয়ম সম্পর্কে তাদের ব্যাখ্যা অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেন এবং আমরা নীতিগতভাবেই কোনো সিদ্ধান্ত নিয়ে মন্তব্য করতে পারি না।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here