অবসর ভেঙে পিএসএলে ফিরছেন গতি দানব শোয়েব আখতার!

গতিতারকা শোয়েব আখতার আবার ফিরছেন ক্রিকেট মাঠে। এই ঘোষণামাত্রই পাকিস্তানের ক্রিকেট মহলে তুমুল আলোড়ন। সাবেক থেকে বর্তমান, অনেকেই রীতিমতো চমকে গেছেন। কারণ, ৪৩ বছরের এক ফাস্ট বোলারের প্রত্যাবর্তন তো সহজ নয়।

খবর হল, পাকিস্তানের সাবেক পেসার শোয়েব আখতার ঘোষণা করেছেন, তিনি ১৪ ফেব্রুয়ারি প্রত্যাবর্তন করছেন। টুইটারে এক ভিডিওতে মঙ্গলবার শোয়েবকে বলতে শোনা যায়, ‘আজকের ছেলেরা মনে করে, তারা ক্রিকেটের অনেক কিছু জানে এবং তারা আমার বোলিং স্পিডকে চ্যালেঞ্জ করতে পারে। তাই, গতি কাকে বলে তা দেখাতে আমি আবার ফিরে আসছি।’

একটু থেমে রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেসের সংযোজন, ‘আমি লিগও খেলব। তাই সাবধান।’

শোয়েব আরও বলেছেন, ‘১৪ ফেব্রুয়ারি হল সেই দিন। তাই তোমাদের ক্যালেন্ডারে ওই দিনটায় দাগ দিয়ে রাখো। ম্যায় ভি আ রাহা হুঁ, ইসবার লিগ খেলনে…আখির ইন বাচ্চো কো পাতা চলে কে তেজি হোতি কেয়া হ্যায়।’

খোলোয়াড় জীবনে নিজের সেরা গতি ছিল ১৬১.৩ কিলোমিটার প্রতিঘণ্টায়। ধারাবাহিকভাবে ১৫৫ থেকে ১৬০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা বেগে বল করতেন। যে গতির জন্য ক্রিকেটমহলে তাকে ডাকা হত রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস নামে।

ঘটনা হল, ১৪ ফেব্রুয়ারি থেকে পাকিস্তান সুপার লিগের চতুর্থ সংস্করণ শুরু হচ্ছে। দেশের ক্রিকেটমহলে গুঞ্জন, শোয়েব হয়তো দেশের ছয়টি পিএসএল টিমের কোনও একটির সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন।

তবে শোয়েবের এই ঘোষণামাত্র পাকিস্তানের ক্রিকেটমহলে তুমুল আলোড়ন। কিংবদন্তি ওয়াসিম আকরাম থেকে শোয়েব মালিক, সকলেই টুইট করে শোয়েবকে স্বাগত জানিয়েছেন।

আকরাম যেমন টুইটে লিখেছেন, ‘শইবি..। সত্যিই এটা হচ্ছে? তুমি ফিরছ? আজকের ছেলেরা তোমার তেজিকে একটু ব্যবহার করতে পারে।’

শোয়েব মালিক বলেছেন, ‘দুর্দান্ত সময় শোয়েবভাই। তুমি ফিরে এসো। দেখাও তেজি কাকে বলে। আমাদের লেজেন্ড ফিরে আসছে, এর জন্য তর সইছে না।’

২০১১ বিশ্বকাপের পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানান শোয়েব। বর্তমানে ৪৩ বছরের ফাস্ট বোলার ধারাভাষ্যকার এবং এক্সপার্ট হিসেবে ক্রিকেটের সঙ্গে যুক্ত। তাকে মনে করা হয় সর্বকালের সব থেকে দ্রুতগতির বোলার। টেস্টে তার শিকার ১৭৮ উইকেট। একদিনের ম্যাচে ২৪৭। তার ঝুলিতে টি-টুয়েন্টি উইকেট রয়েছে ১৯টি।