এবার ২৫২ মিলিয়ন ইউরোতে রিয়াল মাদ্রিদে নেইমার !

এই তো কদিন আগের খবর, নেইমারকে কিনতে ২০০ মিলিয়ন ইউরো জমা করে রেখেছে রিয়াল মাদ্রিদ! কিন্তু যাকে রেকর্ড ২২২ মিলিয়ন ইউরো দিয়ে কিনেছে, তাকে এতো কম দামে বিক্রি করবে পিএসজি? ব্যাপারটা বুঝতে পারছেন রিয়াল মাদ্রিদের কর্তারাও। নেইমারকে কিনতে তাই বাজেটটা বাড়িয়েছে রিয়াল। পিএসজি যেমন বার্সেলোনা থেকে ট্রান্সফার ফির বিশ্ব রেকর্ড গড়ে নেইমারকে কিনেছে, রিয়ালও ট্রান্সফার ফির নতুন রেকর্ড গড়েই দলে ভেড়াতে চাইছে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ডকে।

স্পেনের সাপ্তাহিক ক্রীড়া সাময়িকী ডন ব্যালন জানিয়েছে, ২০০ মিলিয়ন নয়, নেইমারকে কিনতে রিয়াল বাজেট করেছে রেকর্ড ২২৩ মিলিয়ন পাউন্ড বা ২৫২ মিলিয়ন ইউরো! অনেকের মনেই প্রশ্ন জাগতে পারে, হুট করেই রিয়াল মাদ্রিদ এতো টাকা পাবে কোথায়?

টাকা সংগ্রহের পরিকল্পনাও সেরে ফেলেছে রিয়াল মাদ্রিদ। বর্তমান দলের তিন তিনজন খেলোয়াড়কে বিক্রি করে দিতে চাইছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও আর্সেনালের কাছে। ডন ব্যালন জানিয়েছে তেমনটাই। গ্যারেথ বেল ও রাফায়েল ভারানেকে বিক্রি করতে চাইছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কাছে। আর্সেনালের কাছে বিক্রি করতে চাইছে করিম বেনজেমাকে।

গত গ্রীষ্মের দলবদলের সময়ই গ্যারেথ বেলকে কিনতে চেয়েছিল ইউনাইটেড। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আলোচনা জমেনি। তবে তখন নিতে না পারলেও রিয়ালের ওয়েলস উইঙ্গারের উপর ঠিকই নজর রেখেছে ইংলিশ জায়ান্টরা। এছাড়া ফরাসি ডিফেন্ডার ভারানেকেও খুব পছন্দ ইউনাইটেডের পর্তুগিজ কোচ হোসে মরিনহোর। রিয়ালের কোচ থাকাকালে তিনিই ভারানেকে নিয়ে এসেছিলেন রিয়ালে।

ডন ব্যালন জানিয়েছে, বেল ও ভারানেকে মোট ১৩৬ মিলিয়ন ইউরোতে ইউনাইটেডের কাছে বিক্রি করার প্রত্যাশা রিয়ালের। এর মধ্যে বেলকে ১০০ মিলিয়ন ইউরো ও ভারানেকে ৩৬ মিলিয়ন ইউরোয় বিক্রি করার প্রত্যাশা।

বেনজেমাকে আর্সেনালের কাছে ঠিক কত টাকায় বিক্রি করার প্রত্যাশা, সেটা এখনো জানা যায়নি। তবে এই তিনজনকে বিক্রি করেও যদি নেইমারকে কেনার বাজেট পূরণ না হয়, সেক্ষেত্রে বাড়তি পরিকল্পনাও নিয়ে রেখেছে রিয়াল।

গত গ্রীষ্মেই কলম্বিয়ান মিডফিল্ডার-ফরোয়ার্ড হামেশ রদ্রিগেজকে বায়ার্ন মিউনিখে খেলতে পাঠিয়েছে রিয়াল। আগামী মৌসুমেই স্থায়ী চুক্তি হওয়ার কথা। সেটা হলেই রিয়ালের তহবিলে ঢুকবে ৬০ মিলিয়ন ইউরো। দরকার হলে এই টাকাও রিয়াল নেইমারের পেছনে ঢালতে প্রস্তুত।

সেই ছোটবেলা থেকেই নেইমারে মুগ্ধ রিয়ালের সাফল্য পিপাসু সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। ওদিকে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোও মৌসুমে শেষে রিয়াল ছাড়বেন বলে গুঞ্জন আছে। পেরেজ তাই যে কোনো মূলেই পছন্দের নেইমারকে দলে ভেড়াতে মরিয়া। তিনি নাকি সহকর্মীদের স্পষ্টই বলে দিয়েছেন, নেইমারকে দলে চাই-ই চাই। আর সেই ইচ্ছা পূরণে আগে-ভাগেই সেরে রাখছে পরিকল্পনা। নিয়ে রাখছেন প্রস্তুতিও। সময় হলেই ঝাপিয়ে পড়বেন ‘পছন্দের নেইমার সওদা’ ক্রয়ে!