পিচের আচরণে অবাক মাহমুদউল্লাহ

পাওয়ার প্লে তেই চার উইকেট হারায় খুলনা টাইটান্স। এরপরেও বন্ধ হয়নি তাদের উইকেট পতন। বরঞ্চ নিয়মিত বিরতিতে উইকেট পরতে থাকায় একসময় ১১১ রানে অলআউটই হয়ে যায় তারা।

কুমিল্লার স্পিনার শোয়েব মালিক এবং মেহেদী হাসানের কাছেই চারটি মূল্যবান উইকেট বিলিয়ে দেয় খুলনা। সবকিছু মিলিয়ে দারুণ এক ‘শিক্ষা’ টাইটান্সের জন্য। অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদও স্বীকার করছেন সেকথা।

ম্যাচ শেষে খুলনা অধিনায়ক কৃতিত্ব দেন কুমিল্লার বোলারদের। তবে পিচের অদ্ভুত আচরণে ‘অবাক’ তিনি। কেননা এতো আগে সাধারণত টার্ন করেনা চট্টগ্রামের পিচ। একইসঙ্গে পিচের কোনো সুবিধাই নিতে পারেননি তারা- এমনটাও স্বীকার করেন।

ঢাকায় খেলায় ফেরার প্রত্যয়ে রিয়াদ জানান, “অবাক হয়েছি কিছুটা। কেননা বল একটু আগেই সুইং করলো। আর তাই শুরুতেই ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলেছি আমরা। সেখান থেকে ম্যাচে ফেরাও অনেক কঠিন। তারা ভালো জায়গায় বল ফেলেছে।

কৃতিত্ব তাদেরই দিতে হবে। আমাদের শিক্ষাও হল। আমাদের আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরতে হবে। আশা করি ঢাকায় গিয়ে ভালো করবো। উইকেট ভালো ছিল। বোলিং উইকেট হওয়ার পরেও আমরা সুবিধা করতে পারিনি।

বাউন্স বা সুইং কোনো কিছুই কাজে লাগাতে পারিনি। তারপরেও টেবিলের শীর্ষে থেকে ভালো লাগছে। তবে আমাদের সেটা অবশ্যই ধরে রাখতে হবে। ঢাকায় ভালো খেলবো আশা করি।”