কৌতিনহোকে বার্সায় যেতে নেইমারের না

বার্সেলোনার সামনে এবার বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন নেইমার! একদিকে ট্রান্সফার ফি’র বিশ্বরেকর্ড গড়ে পিএসজিতে যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা জোরালো হচ্ছে। এর মাঝেই নেইমারকে নিয়ে নতুন খবর, স্বদেশী ফিলিপ্পে কুতিনহোকে নাকি বার্সায় না আসার অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি।

কুতিনহো বার্সায় আসুক তা চান না নেইমার! স্প্যানিশ ক্রীড়া দৈনিক ‘স্পোর্ট’ এমন খবর প্রকাশ করে রীতিমতো হইচই ফেলে দিয়েছে। তাদের দাবি, সোস্যাল মিডিয়া ‘হোয়াটসঅ্যাপ’ এ কুতিনহোকে ম্যাসেজ পাঠিয়ে বার্সায় না আসার কথা বলেছেন নেইমার। দু’জনেরই বয়স সমান ২৫।

সূত্রমতে, পিএসজি বোর্ডকে নাকি তাদের স্কোয়াড শক্তিশালী করার শর্ত জুড়ে দিয়েছেন নেইমার এবং প্রস্তাবিত নামগুলোর মধ্যে আছেন কুতিনহো। কুতিনহো ইস্যুতে বার্সার বিপক্ষে নেইমারের ‘হস্তক্ষেপ’ দলবদলের বাজারে বাড়তি মাত্রাই যুক্ত করলো। কিন্তু আদৌ এই খবর সত্য কিনা কে জানে!

সম্প্রতি লিভারপুল তারকা কুতিনহোকে পেতে লন্ডনে গিয়েছে বার্সার প্রতিনিধি দল। খবর প্রকাশিত হয়, বড় অঙ্কের চুক্তিতে ন্যু ক্যাম্পে যোগ দিতে পারেন ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার। দু’পক্ষের আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে বলে জানা যায়। ট্রান্সফার রেকর্ড হয়ে যাওয়ারও সম্ভাবনা জাগে। যেটি এখন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের পল পগবার দখলে (১০৫ মিলিয়ন ইউরো)। কিন্তু এখন পর্যন্ত আর কোনো অগ্রগতি নেই। দলের সেরা তারকাকে যেকোনো মূল্যে ধরে রাখতে মরিয়া অল রেডসরা।

নেইমারকে পেতে রিলিজ ক্লজ (ক্লাবের ইচ্ছার বিরুদ্ধে যেতে চাইলে এ পরিমাণ অর্থ দিতে হবে) বাবদ রেকর্ড ২২২ মিলিয়ন দিতে প্রস্তত পিএসজি। ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় ধারাবাহিক সাফল্যে শক্তিশালী দল গঠনের লক্ষ্যে স্কোয়াডে তারকাদের ভেড়ানোর প্রকল্প নিয়ে এগোচ্ছে ফ্রেঞ্চ জায়ান্টরা। ঢালছে কাড়ি কাড়ি অর্থ। এক নেইমারের পেছনেই যা ব্যয় করতে যাচ্ছে সেটিই এর বড় প্রমাণ।

‘স্পোর্ট’র বরাত দিয়ে ‘ডেইলি মিরর’ বলছে এ সপ্তাহেই পিএসজির মেডিকেল সম্পন্ন করতে পারেন নেইমার। কিন্তু দলবদলের বাজারে শেষ কথা বলতে কিছু নেই! শেষ পর্যন্ত লোভনীয় অফারে প্যারিসে উড়াল দেবেন নাকি বার্সায় থেকে যাবেন সেটিই এখন দেখার বিষয়! তার প্রস্থানে যে রঙ হারাবে লা লিগা (স্প্যানিশ লিগ)।

এদিকে, কুতিনহোকে না পেলে বিকল্পও ভেবে রেখেছে বার্সা। আর্সেনালের জার্মান সেনসেশন মেসুত ওজিলের ওপর চোখ রাখছে কাতালানরা। এক সময় যিনি খেলেছিলেন চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদে (২০১০১-১৩)।