বিশ্বকাপের আগে দুইটি প্রস্তুতি ম্যাচে টাইগারদের প্রতিপক্ষ যারা

আগামী অক্টোবর-নভেম্বর মাসে অনুষ্ঠিত হবে ওয়ানডে বিশ্বকাপ। একথা আগেই জানা গেলেও, আয়োজক ভারত আসন্ন এই টুর্নামেন্টের সূচি প্রকাশ নিয়ে টালবাহানা শুরু করে। অতঃপর গত ২৭ জুন বিশ্বকাপের সূচি ঘোষণা করে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)।

তখনই জানা গিয়েছিল, আগামী ৫ অক্টোবর ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ মাঠে গড়াবে। তবে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মিশন শুরু হবে আরও দুই দিন পর অর্থাৎ ৭ অক্টোবর। নিজেদের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের বিপক্ষে মাঠে নামবে সাকিব আল হাসানের দল।

অবশ্য বিশ্বকাপের মূল পর্বে মাঠে নামার আগে নিজেদের প্রস্তুত করতে দুটি আনঅফিসিয়াল ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে বাংলাদেশ দল, এটাও পুরোনো খবর। এবার নতুন খবর হচ্ছে, বুধবার (২৩ আগস্ট) এই দুটি প্রস্তুতি ম্যাচের প্রতিপক্ষ, তারিখ ও ভেন্যু আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করেছে আইসিসি।

সূচি অনুযায়ী, আগামী ২৯ সেপ্টেম্বর বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব পেরিয়ে আসা শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম আনঅফিসিয়াল ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। এরপর ২ অক্টোবর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মাঠে নামবে টাইগাররা। দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে আসামের গুয়াহাটি ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

অবশ্য এর আগেই বোর্ড অব কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) বরাত দিয়ে আসাম ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন জানিয়েছিল, বাংলাদেশের দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ তারা আয়োজন করছে। পাশাপাশি ম্যাচগুলো আয়োজনের সুযোগ করে দেওয়ায় বিসিসিআইয়ের প্রতি কৃতজ্ঞতাও প্রকাশ করেছিল তারা।

এবার চেনা কন্ডিশনে প্রতিবেশি ভারতে বিশ্বকাপের মঞ্চে ভালো ফলের আশায় বুক বেঁধেছে বাংলাদেশ দল। বিশ্বকাপ সুপার লিগে দারুণ পারফর্ম্যান্সে পয়েন্ট তালিকার বেশ উপরে থেকে সরাসরি মাঠে নামবে লাল সবুজরা। তাই বিশ্বকাপের মূল পর্বের আগে এসব ম্যাচকেও গুরুত্ব দিচ্ছে বিসিবি।